সৌদিতে খুন হওয়া দুই বাংলাদেশির পরিবারকে ৩০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ২১, ২০২৩, ১০:২৬ AM
সৌদিতে খুন হওয়া দুই বাংলাদেশির পরিবারকে ৩০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ

সৌদি আরবে খুন হওয়া দুই বাংলাদেশির পরিবারকে ৩০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয়েছে। হত্যাকারীদের কাছ থেকে এ অর্থ আদায় করা হয়েছে। অভিযুক্ত দুজনেই সৌদি নাগরিক। সর্বোচ্চ আর্থিক ক্ষতিপূরণের (রক্তপণ) বিনিময়ে তাদের মৃত্যুদণ্ড থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।

বুধবার সৌদি আরবে বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ক্ষতিপূরণের টাকা এরই মধ্যে মিশনের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা হয়েছে। নিহত সাগর ও আবিরণের স্বজনদের কাছে সেই টাকা হস্তান্তরের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।
সৌদি আরবে রক্তপণ হিসেবে বাংলাদেশিদের দেওয়া এটিই সর্বোচ্চ পরিমাণ অর্থ। রিয়াদে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ডা. জাভেদ পাটোয়ারীর মধ্যস্থতার এ অর্থ আদায় হয়েছে বলে জানানো হয়।
২০০৬ সালের জুনে কুমিল্লার সাগর পাটোয়ারীকে সৌদি আরবের দাম্মামে ওমর আল-শাম্মার গুলি করে হত্যা করেন। অপর ঘটনায় ২০১৯ সালের মার্চ মাসে রিয়াদে নিয়োগকর্তা আয়েশা আল-জিজানির হাতে খুন হন গৃহকর্মী খুলনার আবিরণ বেগম।
বিচারিক প্রক্রিয়ার পর সৌদি আরবের আদালত উভয় আসামির শিরশ্ছেদে মৃত্যুদণ্ডের রায় দেন। পরে সৌদি সরকার ও দোষীদের আত্মীয়দের পক্ষ থেকে সে দেশের আইনে রক্তপণের বিনিময়ে ক্ষমার জন্য আপিল করা হলে এবং নিহতদের নিকটাত্মীয়রা তাতে সম্মত হন।

পরে সাগর হত্যার জন্য ৫১ লাখ সৌদি রিয়াল (প্রায় ১৪ কোটি ৮৭ লাখ ৪০ হাজার টাকা) এবং আবিরণকে হত্যার জন্য ৪৮ লাখ ৮০ হাজার সৌদি রিয়াল (১৪ কোটি ২৩ লাখ ৩০ হাজার টাকা) দেওয়া হয়। -সংগৃহিত

https://www.bkash.com/