‘মনোনয়ন প্রত্যাহারে চাপ দিলে ব্যবস্থা’


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ১৩, ২০১৫, ৩:০৮ PM
‘মনোনয়ন প্রত্যাহারে চাপ দিলে ব্যবস্থা’

download-28ফুলবাড়িয়া নিউজ 24ডটকম : আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে কোনো দল স্বতন্ত্র কোনো প্রার্থীকে প্রার্থিতা প্রত্যাহারে জন্য চাপ বা হুমকি দিলে এবং ওই প্রার্থী সে বিষয়ে লিখিতভাবে অভিযোগ করলে যথাযথ ব্যবস্থা নেবে নির্বাচন কমিশন।

রোববার আগারগাঁওয়ে নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ে তার নিজ কক্ষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) জাবেদ আলী।

বিভিন্ন রাজনৈতিক দল থেকে বলা হচ্ছে, স্বতন্ত্র প্রার্থীরা প্রার্থিতা প্রত্যাহার না করলে দল থেকে বহিষ্কার করা হবে। এ বিষয়ে ইসি কী পদক্ষেপ নেবে, জানতে চাইলে ইসি কমিশনার জাবেদ আলী বলেন, ‘স্বতন্ত্র প্রার্থী যদি আমাদের কাছে লিখিত অভিযোগ জানান, তাহলে অবশ্যই আমরা তার প্রচারণা বা অবস্থানের সুবিধার্থে একজন প্রার্থী হিসেবে যতটুকু সুবিধা আশা করেন, আইনগতভাবে আমরা তা দিব।’

তিনি বলেন, ‘নির্বাচনী বিধি অনুযায়ী কোনো রাজনৈতিক দল এক পৌরসভায় একাধিক প্রার্থী দিতে পারবে না। তাই কোনো দলের একাধিক প্রার্থী থাকার কোনো সুযোগ নেই। তবে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে একাধিক প্রার্থী নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন।’

তবে আমরা স্বতন্ত্র প্রার্থীর কাছ থেকে এ বিষয়ে কোনো অভিযোগ পাইনি। এরপরও প্রার্থীর পক্ষে লিখিত অভিযোগ জানালে সে ব্যাপারে সহায়তা দেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

দুই মন্ত্রীর আচরণবিধি লঙ্ঘনের বিষয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আচরণবিধি লঙ্ঘনের যেকোনো অভিযোগের বিষয়ে সত্যতা যাছাই করে বিচার করা হবে। আইনে বলে দেওয়া হয়েছে, কী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।বিদ্যমান কাঠামোতে রিটার্নিং কর্মকর্তারাই আচরণবিধি লঙ্ঘনের বিষয়ে ব্যবস্থা নেবেন।

তিনি বলেন, রিটার্নিং কর্মকর্তারা মাঠেই আছেন, তারা দেখতে পাচ্ছেন সেখানে কী হচ্ছে। এখন মাঠে ম্যাজিস্ট্রেট রয়েছেন, অন দ্য স্পটে থেকে ব্যবস্থা নিতে পারবেন। ইসির অপেক্ষায় বসে থাকার দরকার কী?

জাবেদ আলী বলেন, আজ থেকে নির্বাচনী মাঠে নির্বাহী ও জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট থাকছেন। আমরা আশা করব, প্রার্থী, তাদের কর্মীরা ও রাজনৈতিক দল, কেউ যেন আচরণবিধি ভঙ্গ না করেন।তাহলে ম্যাজিস্ট্রেটের কাজ সহজ হবে।

বিএনপির আস্থা ফেরাতে কমিশন কোনো পদক্ষেপ নিচ্ছে কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘সকলের জন্য আমরা কাজ করব। যেকোনো প্রার্থী আমাদের কাছে একই কদরের, সম্মানের। কোনো প্রার্থীর জন্য কম-বেশি কাজ করব না। আমাদের কাছ থেকে সবাই একই ট্রিটমেন্ট পাবেন।’

https://www.bkash.com/