প্রাক প্রাথমিক শিক্ষক হলেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক গৌরীপুরে নহাটা প্রাইমারী স্কুলে অনিয়ম ও অর্থ আতœসাতের অভিযোগ


প্রকাশের সময় : নভেম্বর ২, ২০১৬, ১:৪৯ PM
প্রাক প্রাথমিক শিক্ষক হলেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক গৌরীপুরে নহাটা প্রাইমারী স্কুলে অনিয়ম ও অর্থ আতœসাতের অভিযোগ

গৌরীপুর প্রতিনিধি ঃ ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার মাওহা ইউনিয়নে ২৮ নং নহাটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নানা অনিয়ম, দুর্নীতি ও অর্থ আতœসাতের অভিযোগ ওঠেছে শিক্ষক ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। এব্যাপারে অত্র বিদ্যালয়ের এসএমসি কমিটির সদস্যবৃন্দ ২৩ অক্টোবর গৌরীপুর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার বরাবরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগে প্রকাশ ওই কাস্টারের দায়িত্বে থাকা উপজেলা সহকারি প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মুজাহিদুল ইসলামের যোগসাজসে নহাটা সরকারি প্রাইমারী স্কুলের পূর্বের প্রধান শিক্ষক সুফিয়া পারভীন ও বর্তমান ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোঃ নূরুউল্লাহ বিভিন্ন সময়ে স্লীপ কমিটির টাকা উত্তোলন করে বিদ্যালয়ের কোন সরঞ্জামাদি ক্রয় না করে তা আতœসাত করেন। উল্লেখ্য চলতি বছরের প্রথম দিকে স্কুলে সিনিয়র শিক্ষক দায়িত্বে থাকা সত্বে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে প্রাক প্রাথমিক শিক্ষক নূরউল্লাহকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব প্রদান করেন এটিও মুজাহিদুল ইসলাম। বর্তমানে অত্র স্কুলে সিনিয়র শিক্ষকের সংখা বৃদ্ধি পেলেও রহস্যজনক কারনে তাদেরকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব দেয়া হচ্ছে না। এব্যাপারে এটিও মুজাহিদুল ইসলাম বলেন ওই সময় বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষকরা দায়িত্ব নিতে অপরাগতা প্রকাশ করায় নূরউল্লাহকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব দেয়া হয়েছিল। স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নূরুউল্লাহ এসএমসি কমিটির লোকজনের এসব অভিযোগকে মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন বলে মন্তব্য করেন। উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার জুয়েল আশরাফ বলেন কোন স্কুলে সিনিয়র শিক্ষক থাকা অবস্থায় প্রাক প্রাথমিক শিক্ষক ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব পালন করতে পারে না। বিদ্যালয়ে অনিয়ম ও অর্থ আতœসাতের অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত করা হবে। #

https://www.bkash.com/