গৌরীপুরে যুবলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে বাড়ী-ঘর ভাংচুর আহত-১


প্রকাশের সময় : এপ্রিল ১৮, ২০১৮, ৫:৪৭ AM
গৌরীপুরে যুবলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে বাড়ী-ঘর ভাংচুর আহত-১

মশিউর রহমান কাউসার, গৌরীপুর : ময়মনসিংহের গৌরীপুর পৌরসভার চকপাড়া এলাকায় সোমবার (১৬ এপ্রিল) যুবলীগের দু’গ্রুপের দফায় দফায় সংঘর্ষে ৩টি বাড়ী ও ১টি দোকানে ব্যাপক ভাংচুর-লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। এতে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নান (২৮) কে গৌরীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনার পাশাপাশি দু’গ্রুপের মাঝে বর্তমানে চলছে পাল্টাপাল্টি অভিযোগ। একটি পক্ষের অভিযোগ পৌর মেয়র সৈয়দ রফিকুল ইসলামকে বৈশাখী অনুষ্ঠানে অতিথি না করায় তার সমর্থকরা স্থানীয় যুবলীগনেতা কামাল, জামাল ও দুলালের বাড়ী-দোকানে হামলা চালিয়ে ভাংচুর-লুটপাট করেছে। অন্যপক্ষের অভিযোগ এলাকায় অসামাজিক কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করায় আব্দুল হান্নানকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। স্থানীয় লোকজন জানায় ঘটনারদিন বেলা ১১ টার দিকে উল্লেখিত চকপাড়া পানির ট্যাংকী এলাকায় স্থানীয় বিল্লাল মুন্সীর পুত্র যুবলীগ নেতা আব্দুল হান্নানের ওপর প্রতিবেশী মৃত মীর হোসেনের পুত্র যুবলীগ নেতা কামাল হোসেন গংরা হামলা চালিয়ে তাকে জখম করে। এতে হান্নানের পক্ষের লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে কামাল, জামাল ও দুলালের বাড়ী-ঘর ও দোকানে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করেছে। বাড়ী-দোকান ভাংচুরের ঘটনায় কামাল হোসেন বাদী হয়ে স্থানীয় যুবলীগ ও স্বেচ্ছাসেকলীগের ২০ জন নেতা-কর্মীসহ অজ্ঞাত ৩০ জনের বিরুদ্ধে গৌরীপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। উক্ত অভিযোগে উল্লেখ করা হয় পহেলা বৈশাখ উদযাপন উপলক্ষ্যে গৌরীপুর রেলষ্টেশন এলাকায় বর্ষবরন অনুষ্ঠানে পৌর মেয়র সৈয়দ রফিকুল ইসলামকে অতিথি না করায় তার সমর্থকদের সাথে কামালের বিরোধ সৃষ্টি হয়। এনিয়ে ঘটনার দিন দুপুরে তার ও তার সহোদর ভাই জামালের বাড়ী-দোকানে সসস্ত্র হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর-লুটপাট করে প্রতিপক্ষ। এবিষয়ে মুঠোফোনে জানতে চাইলে গৌরীপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ রফিকুল ইসলাম জানান তিনি গত রবিবার থেকে দাপ্তরিক কাজে রাজধানীতে অবস্থান করছেন, সামাজিক ও রাজনৈতিকভাবে তাকে হেয় প্রতিপন্ন করার উদ্দেশ্যে স্থানীয় একটি মহল মিথ্যা অভিযোগ উত্থাপন করে ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা চালাচ্ছে। তিনি আরো বলেন উল্লেখিত কামাল হোসেন গংদের চকপাড়ায় নিজের কোন জমি নেই। রেলের জমি অবৈধভাবে ঘর উত্তোলন করে তারা এলাকায় মাদক ব্যবসা, ট্রেনের টিকিট কালোবাজারী, জুয়ার আসরসহ বিভিন্ন অসামাজিক কার্যকলাপ করে আসছিল। গৌরীপুর পৌরসভা কার্যালয়ে তাদের অসামাজিক কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে স্থানীয় লোকজনের অভিযোগ রয়েছে। স্থানীয় ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নান এসব অসামাজিক কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করায় ঘটনারদিন তাকে কুপিয়ে জখম করা হয়। এতে স্থানীয় লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে কামাল গংদের বাড়িতে হামলা করে থাকতে পারে। এসময় তিনি বলেন উক্ত হামলার ঘটনার সাথে তার কোন সম্পৃক্ততা বা কোন প্রকার ইন্দন ছিল না। গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ দেলোয়ার আহাম্মদ জানান চকপাড়ায় বাড়ী ভাংচুরের ঘটনায় কামাল হোসেন বাদী হয়ে থানায় অভিযোগ দিয়েছেন। তদন্তসাপেক্ষে এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

https://www.bkash.com/