সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:০৫ পূর্বাহ্ন

গৌরীপুরে বাঁশের খুঁটি দিয়ে চলছে বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন 

ওবায়দুর রহমান, ময়মনসিংহ: গ্রামের মাঝখান দিয়ে গেছে পীচঢালা পথ। সেই পথের পাশেই বাঁশের খুঁটিতে ঝুলছে বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন। বৈদুতিক তারের ভারে বাঁশের খুঁিট হেলে পড়েছে। কোথাও আবার হেলে থাকা বাঁশের খুঁটি ঠেকনা দেয়া হয়েছে অপর একটি বাঁশ দিয়ে। আবার কোথাও কোথাও বাঁশের খুঁটি নিচের দিকে ভেঙ্গে তারের সাথে ঝুলে আছে।
পিডিবির বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইনের এই চিত্রের দেখা মিলে ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার শালীহর গ্রামে। স্থানীয়রা জানান বিদ্যুৎ সরবরাহের জন্য বাঁশের খুঁটি পরিবর্তন করে সিমেন্টের খুঁটি বসানোর জন্য কর্তৃপক্ষের কাছে বারবার দাবি জানানো হলেও কোন ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। জীবন ঝুঁকির মধ্যেই চলাচল ও বসবাস করতে হচ্ছে তাদের।
খোঁজ নিয়ে দেখা গেছে, শালীহর গ্রামের নিমতলী মোড় থেকে শালীহর নয়াপাড়া জামে মসজিদ পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার এলাকায় বাঁশের খুঁটি দিয়ে বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন টানা হয়েছে। এই সঞ্চালন লাইন থেকে উক্ত গ্রামের অর্ধশতাধিক গ্রাহক সড়ক ও ফসলি জমিতে বাঁশের খুঁটি পুঁতে তার টানিয়ে বাড়ি কিংবা সেচের জন্য বিদ্যুৎ সংযোগ নিয়েছেন।
কিন্তু দীর্ঘদিনেও বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন সংষ্কার না হওয়ায় রোদে পুড়ে ও বৃষ্টিতে ভিজে বাঁশের খুঁটিগুলো দুর্বল হয়ে পড়েছে ও ভেঙ্গেও পড়েছে। এমনবস্থায় যেকোন মূহূর্তে হাল্কা বাতাসে বা ঝড়বৃষ্টিতে খুঁটি ভেঙ্গে সঞ্চালন লাইন ধ্বসে পড়ে বা বিদ্যুতের তার তার ছিঁড়ে প্রাণহানির মত ঘটনা ঘটতে পারে।
ওই গ্রামের বাসিন্দা নূরুল হক বলেন বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইনের বাঁশের খুঁটি নষ্ট কিংবা ভেঙে পড়লে  গ্রাহকদের উদ্যোগে নতুন করে খুঁটি স্থাপন করা হয়। বিদ্যুৎ বিভাগ কোন খবর নেয় না। চার বছর ধরে এভাবেই ঝুঁকিপূর্ণ উপায়ে বিদ্যুৎ ব্যবহার করে আসছে গ্রামবাসী।
আশরাফুল হক নামের একজন বিদ্যুৎ গ্রাহক জানান, দীর্ঘদিন যাবত লাইনটি মেরামত করার কথা বললেও বিদ্যুৎ বিভাগের কেউ খোঁজ নেয়না। আমরা আশঙ্কার মধ্যে থাকি যে কোন সময় ঘটতে পারে বড় ধরণের দূর্ঘটনা।
স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল হেলিম বলেন, দীর্ঘদিন সংস্কার না হওয়ায় বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন অত্যন্ত জরাজীর্ণ ও ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে গেছে। কোথাও বাঁশের খুঁটি হেলে পড়েছে, কোথাও সঞ্চালন লাইনের তার সড়কের ওপর ন্যূয়ে পড়েছে। দূর্ঘটনা এড়াতে দ্রæত বিদ্যুৎ লাইনের সংস্কার ও বাঁশের খুঁটি পরিবর্তন করে সিমেন্টের খুঁটি দেয়ার দাবি জানাচ্ছি।
উপজেলা প্রকৌশলী আবাসিক (বিদ্যুৎ) মোঃ বিল্লাল হোসেন বলেন প্রকল্পের মাধ্যমে উপজেলায় বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন সংস্কার ও খুঁটি স্থাপনের কাজ চলছে। শালীহর গ্রামের বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন সংস্কার ও বাঁশের খুুঁটি পরিবর্তন করে সিমেন্টের খুঁটি দেয়া হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

কপিরাইট © ফুলবাড়িয়ানিউজ২৪ ডট কম ২০২০
Design & Developed BY A K Mahfuzur Rahman