গৌরীপুরে পরকীয়ার সন্দেহে গৃহবধূকে নির্যাতনের ঘটনায় গ্রেফতার-২


প্রকাশের সময় : ফেব্রুয়ারী ১৮, ২০১৮, ২:০৭ PM
গৌরীপুরে পরকীয়ার সন্দেহে গৃহবধূকে নির্যাতনের ঘটনায় গ্রেফতার-২

মশিউর রহমান কাউসার, গৌরীপুর : ময়মনসিংহের গৌরীপুর পৌর শহরে ইসলামাবাদ এলাকায় পরকীয়ার সন্দেহে এক গৃহবধূকে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতনের ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে দু’নারীকে রবিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) গ্রেফতার করেছে গৌরীপুর থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হল- মৃত আবু মিয়ার স্ত্রী হাবিলা খাতুন (৫০) ও তার মেয়ে টক্কুনি (৩০)। স্থানীয় লোকজন জানায় টক্কুনির স্বামী শহিদুলের সাথে পরকীয়ায় লিপ্ত থাকার সন্দেহে পাশ্ববর্তী মাঝিপাড়া গ্রামের সোলেমান মিয়ার স্ত্রী সেলিনাকে শনিবার মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন করা হয়। ওইদিন বেলা ১১টা থেকে বিকেলে সাড়ে ৩ টা পর্যন্ত ইসলামাবাদ এলাকায় ওই গৃহবধূকে আটকের পর প্রকাশ্যে মারধর করে শরীরের বিভিন্নস্থানে রক্তাত্ব জখম করে তাতে মরিচের গুড়া লাগিয়ে দেয়া হয়। পরে তাকে মাথার চুল কেটে ও গলায় জুতার মালা পড়িয়ে রাস্তায় ঘুরানো হয়। এ ঘটনাটির ভিডিও ফুটেজ স্থানীয় সাংবাদিক শেখ মোঃ বিপ্লব কর্তৃক ফেইসবুকে ভাইরাল হওয়ায় এলাকায় তোলপাড় শুরু হয়। খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গৌরীপুর সার্কেল সাখের হোসেন সিদ্দিকী ও গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ দেলোয়ার আহম্মদ রবিবার দুপুরে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় ঘটনাস্থল থেকে ওই নির্যাতিতা গৃহবধূকে উদ্ধার করেন এবং ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে হাবিলা খাতুন ও তার মেয়ে টিক্কুনিকে গ্রেফতার করা হয়। গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ দেলোয়ার আহম্মদ জানান, এ ঘটনায় সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে নির্যাতিতা গৃহবধূর স্বামী সোলেমান মিয়া ৩ জনের নামে মামলা দায়ের করেন। আহত গৃহবধূকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সোলেমান জানায় তার স্ত্রী দুসন্তানের জননী। সে অন্যের বাড়িতে গৃহপরিচারিকার কাজ করতো।

https://www.bkash.com/