আশার সেবা সপ্তাহের উদ্বোধন করলেন ময়মনসিংহ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক


প্রকাশের সময় : মার্চ ২০, ২০১৮, ৯:১৯ AM
আশার সেবা সপ্তাহের উদ্বোধন করলেন ময়মনসিংহ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক

মশিউর রহমান কাউসার : বাংলাদেশ উন্নয়শীল দেশের মর্যাদা পাওয়ায় বেসরকারি ঋনদান সংস্থা আশা ময়মনসিংহ জেলা কার্যালয়ে ২০ থেকে ২৫ মার্চ পর্যন্ত সেবা সপ্তাহ শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার (২০ মার্চ) উক্ত সেবা সপ্তাহের উদ্বোধন করেন ময়মনসিংহ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মোঃ মহিউদ্দিন। আশা ময়মনসিংহ সিনিয়র ডিস্ট্রিক ম্যানেজার অমরেশ মন্ডলের সভাপতিত্বে আয়োজিত আলোচনা সভায় জেলার অন্যান্য উর্দ্ধতন কর্মকর্তাগন বক্তব্য দেন। এসময় অমরেশ মন্ডল সভাপতিত্বের বক্তব্যে আশার ময়মনসিংহের ২০১৭ সালের সার্বিক কার্যক্রম উপস্থাপন করেন। তিনি বলেন আশা ১৯৯০ সাল থেকে ময়মনসিংহ জেলায় ঋণদান কর্মসূচীসহ অন্যান্য কার্যক্রম সফলভাবে পরিচালনা করে আসছে। বর্তমানে অত্র জেলায় মোট ৩০টি ব্রাঞ্চ কার্যালয়ের মাধ্যমে প্রায় ৬৪৪৭৫ জন সদস্যকে ৩২২ কোটি টাকা ঋণ প্রদান করে দরিদ্র পরিবারের সদস্যসহ ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন ধরনের ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের যেমনঃ কুটিরশিল্প, মৎস্য চাষ, পাওয়ারটিলার, উন্নতজাতের দুগ্ধবতী গাভী খামার, সবজিচাষ, মৌসুমী ফসল, গোবাদী পশুপালন ইত্যাদি কাজে নিয়োজিতদের স্বাবলম্বি করতে/আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে সরাসরি সহায়ক ভুমিকা পালন করে আসছে। এছাড়াও আশা মাইক্রোক্রেডিট এর পাশাপাশি নিজস্ব অর্থায়নে সামাজিক কার্যক্রম হিসাবে ছাত্র-ছাত্রী ঝরে পড়া রোধ কল্পে প্রাথমিক শিক্ষা শক্তিশালীকরণ, স্যানিটেশন সুবিধা, বিনা মূল্যে প্রাথমিক স্বাস্থ্য সেবা, ফিজিও থেরাপি ক্যাম্প কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এছাড়াও নিজস্ব ক্যাম্পাসে আশা ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ, আশা ম্যাটস, চক্ষু হাসপাতাল কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। জেলায় মোট ১৫টি ব্রাঞ্চে ২২৫টি শিক্ষা কেন্দ্রের মাধ্যমে প্রায় ৬৪৯২ জন হতদরিদ্র পরিবারের ছাত্র/ছাত্রীদের মাঝে প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা শক্তিশালীকরণে সহায়ক ভূমিকা পালন করে আসছে এবং জেলায় মোট ৭টি ব্রাঞ্চ এবং ১টি স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ৫৭ জন স্বাস্থ্য কর্মীর মাধ্যমে ডায়াবেটিস, জ্বর, প্রেগনেন্সী টেস্টসহ প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা প্রদান করছে। পাশাপাশি জেলার সকল ব্রাঞ্চ কার্যালয়ের মাধ্যমে সাপ্তাহিক সভা করে স্বাস্থ্য সচেতনতা মূলক বিভিন্ন ইস্যুভিত্তিক আলোচনা মাধ্যমে সদস্যদেরকে প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরিচর্যা সম্পর্কে সচেতন করা হচ্ছে এবং গরীব ও হতদরিদ্র সদস্যদের চিকিৎসা সহায়তা বাবদ মোট ১৭০ জনকে ৫৩৫৫০০ টাকা অনুদান প্রদান করেছে। ফিজিও থেরাপী চিকিৎসা সেবা ৬০টি ক্যাম্পের মাধ্যমে ২০৪৮জনকে সেবা প্রদান করা হয়েছে।

https://www.bkash.com/